আমরা লাইভে English বৃহস্পতিবার, মে ০৬, ২০২১

আইসিডিডিআর,বির সঙ্গে চুক্তি গ্লোব বায়োটেকের

vaccine-covid-660-1

দেশের ওষুধ প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান গ্লোব বায়োটেকের করোনাভাইরাস প্রতিরোধী ভ্যাকসিন 'বানকভিড' মানবদেহে ট্রায়াল (পরীক্ষামূলক প্রয়োগ) করবে আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা প্রতিষ্ঠান, বাংলাদেশ (আইসিডিডিআর,বি)।  

বুধবার দুপুরে রাজধানীর তেজগাঁওয়ে গ্লোব বায়োটেকের কার্যালয়ে এ-সংক্রান্ত সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়। গ্লোব বায়োটেকের চেয়ারম্যান হারুনুর রশীদ এবং আইসিডিডিআর,বির ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী পরিচালক ড. তাহমিদ আহমেদ নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।

অনুষ্ঠানে ড. তাহমিদ বলেন, গ্লোব বায়োটেক উদ্ভাবিত করোনা প্রতিরোধী টিকা বানকভিড প্রাণিদেহে ট্রায়ালের ফলাফল পর্যালোচনা করবে আইসিডিডিআর,বি। বিশেষ করে প্রাণিদেহে যে পরীক্ষাগুলো হয়েছে, তার ফলাফল দু'পক্ষ দেখবে, পর্যালোচনা করবে। পরে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের যে প্রটোকল হবে, সেগুলো দেখা হবে এবং রিভিউ করা হবে।

তিনি জানান, ওই পর্যালোচনায় ফলাফল সন্তোষজনক হলে মানবদেহে ট্রায়ালের জন্য বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যান্ড রিসার্চ কাউন্সিল (বিএমআরসি) এবং ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের অনুমতি চাওয়া হবে। অনুমতি পাওয়া গেলে মানবদেহে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের কাজ শুরু হবে। প্রাথমিকভাবে তিন হাজার মানুষের ওপর এই টিকা ট্রায়ালের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

গ্লোব বায়োটেক উদ্ভাবিত টিকার ট্রায়াল কবে শুরু হতে পারে- জানতে চাইলে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. কাকন নাগ সাংবাদিকদের বলেন, ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের প্রটোকল মেনে প্রথম, দ্বিতীয় ও তৃতীয় ধাপে ট্রায়াল করা হচ্ছে। নিয়ন্ত্রক সংস্থা, বিশেষ করে সরকার আন্তরিক হলে দ্রুতই মানবদেহে ট্রায়াল করা সম্ভব হবে। এই টিকার কার্যকারিতা নিয়েও তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

এদিকে, গ্লোব বায়োটেকের গবেষণা ও উন্নয়ন বিভাগের প্রধান ডা. আসিফ মাহমুদ বলেন, আইসিডিডিআর,বির সঙ্গে সমঝোতার আওতায় সিআরও বা দ্বিতীয় পক্ষ হিসেবে আইসিডিডিআর,বি তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়ালের প্রটোকল তৈরি করে বিএমআরসিতে জমা দেবে। বিএমআরসির উচ্চ পর্যায়ের ইথিক্যাল বোর্ড ওই প্রটোকল অনুমোদন করলে গ্লোব বায়োটেক উদ্ভাবিত বানকভিড টিকা তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়াল শুরু হবে।

গত ৫ অক্টোবর রাজধানীর একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে গ্লোব বায়োটেক কর্তৃপক্ষ প্রাণিদেহে বানকভিডের ট্রায়ালের সফলতার কথা জানায়। সরকারের সার্বিক সহযোগিতা পেলে ডিসেম্বরের শেষে অথবা জানুয়ারির শুরুতে এই ভ্যাকসিন বাজারে আনার আশাবাদ ব্যক্ত করে কোম্পানিটি। বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাস সংক্রমণের পর গত মার্চে গ্লোব বায়োটেক করোনা প্রতিরোধী ভ্যাকসিনের ওপর গবেষণা শুরু করে।