আমরা লাইভে English বুধবার, অক্টোবর ২৭, ২০২১

দাঁড়াতে পারছেন না সুচি, আদালতে উপস্থিতিতে অক্ষম

292752_n30

স্বাস্থ্যগত কারণে আদালতের শুনানিতে উপস্থিত হতে সক্ষম নন মিয়ানমারে ক্ষমতাচ্যুত নেত্রী অং সান সুচি (৭৬)। তার আইনজীবী টিমের এক সদস্য বলেছেন, চলাফেরা করলেই তার মাথা ঘোরে। এ কারণে তিনি আজ সোমবার আদালতের শুনানিতে উপস্থিত হতে পারবেন না। বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর দিয়েছে। এ বছর ১লা ফেব্রুয়ারি রক্তপাতহীন সামরিক অভ্যুত্থানে তাকে ক্ষমতাচ্যুত করে দেশটির সামরিক জান্তা। তারপর তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ এনে আটকে রেখেছ জান্তা। আইনজীবী মিন মিন সোয়ে বলেছেন, সুচির করোনা ভাইরাস ধরা পড়েনি। তবে দীর্ঘ সময় তিনি গাড়িতে সফর করলেই অসুস্থ হয়ে পড়েন।

শান্তিতে নোবেল পুরস্কার বিজয়ী অং সান সুচি গত তিনটি দশকের প্রায় অর্ধেক সময় কাটিয়েছেন আটক অবস্থায়। সামরিক জান্তাদের বিরুদ্ধে অহিংস আন্দোলন করার কারণে তিনি এই কারাভোগ করেন। আইনজীবী মিন মিন সোয়ে বলেছেন, সুচি মারাত্মক অসুস্থ নন। তিনি গাড়িতে সফর করলে অসুস্থ হয়ে পড়েন। দাঁড়াতে পারেন না। আমাদেরকে বলেছেন, বিশ্রাম নিতে চান। শুধু আইনজীবী টিমের মাধ্যমে তিনি বাইরের দুনিয়ার সঙ্গে যোগাযোগ রাখতে পারেন। তবে এক্ষেত্রেও তার সুযোগ সীমিত এবং তাতে জান্তা সরকারের মনিটরিং আছে। ওয়াকিটকি রাখা, করোনা ভাইরাস প্রোটোকল ভঙ্গ করা সহ বহুবিধ অভিযোগে রাজধানী ন্যাপিডতে বিচার হচ্ছে তার। বড় অংকের ঘুষ নেয়ার অভিযোগ আছে তার বিরুদ্ধে। একটি আলাদা এবং অধিক গুরুত্বপূর্ণ একটি মামলায় বলা হয়েছে, তিনি অফিসিয়াল সিক্রেট অ্যাক্ট ভঙ্গ করেছেন। এ অভিযোগে তার শাস্তি হতে পারে ১৪ বছরের জেল। এসব অভিযোগের প্রতিটিই প্রত্যাখ্যান করেছেন তার আইনজীবীরা। আইনজীবী টিমের প্রধান খিন মুয়াং জাওয়া বলেছেন, সোমবার দাঁড়াতে পারছিলেন না সুচি। এ জন্য তার অনুপস্থিতিকে অনুমোদনের অনুরোধ করেন বিচারকের কাছে। তিনি আরো বলেন, সুচির ঘন ঘন হাঁচি হচ্ছিল। তন্দ্রাচ্ছন্ন অনুভূত হচ্ছে তার। সংক্ষিপ্ত সময়ের জন্য তার সঙ্গে কথা বলতে পেরেছেন আইনজীবীরা।