আমরা লাইভে English বৃহস্পতিবার, অক্টোবর ২৯, ২০২০

চীন সীমান্তে অচলাবস্থা দীর্ঘ হলে ভারতকে চরম অর্থনৈতিক মূল্য দিতে হবে: শ্যাম সরন

REPORT-2-ENG-05-09-2020-India

সীমান্তের উভয় দিকে ভারতীয় ও চীনা সৈন্যদের বড় সংখ্যায় মোতায়েন ও শীত মওসুমেও উত্তেজনা অব্যাহত থাকলে উচ্চ অর্থনৈতিক মূল্য ও বেশ দীর্ঘস্থায়ী অচলাবস্থার সৃষ্টি করতে পারে। ভারতের সাবেক পররাষ্ট্রসচিব শ্যাম সরন এ কথা বলেন। বৃহস্পতিবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বক্তব্যের পর তিনি এই মন্তব্য করেন। 

ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গত চার মাস ধরে পূর্ব লাদাখের সীমান্ত এলাকায় যে পরিস্থিতি বিরাজ করছে তা এই অঞ্চলের স্থিতিবস্থা একতরফাভাবে পরিবর্তন করার লক্ষ্যে চীনে গৃহীত পদক্ষেপের প্রত্যক্ষ পরিণাম।

একটি নিউজ ওয়েবসাইটকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে সরণ বলেন, চীনারা বলছে যে প্রত্যাহার প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়ে গেছে। প্যাংগং এলাকায় তাদের দখল করা কিছু এলাকা থেকে প্রত্যহারের কোনো ইচ্ছা তাদের আছে বলে মনে হচ্ছে না।

সরণ আরো বলেন, শীতকালেও অচলাবস্থা থাকলে এখানে বিপুল বিনিয়োগ করতে হবে। কারণ এখানকার শীত হয় ভয়াবহ। ফলে এখানে যারা থাকবে, তাদের উষ্ণ রাখার ব্যবস্থা করতে হবে। আর সেজন্য বিপুল অর্থের প্রয়োজন।

তিনি বলেন, আর তা যদি ঘটে, তবে আমার মনে হচ্ছে, অচলাবস্থাটি দীর্ঘস্থায়ী হবে।

সরণ আরো বলেন, চীনের ওপর ভারতের ব্যাপক অর্থনৈতিক মূল্য চাপিয়ে দেয়ার পরিকল্পনাটি কাজ করবে না।

বেশ কিছু চীনা কোম্পানির ক্রমবর্ধমান বাজার ভারতে থাকার কথা উল্লেখ করে বলেন, এখন প্রশ্ন হরো, এসব চীনা কোম্পানির সমৃদ্ধি কি চীনা সরকারের কাছে তাদের ভূখণ্ডগত ইস্যু নিয়ে অবস্থান পরিবর্তন করার জন্য পর্যাপ্ত পরিমাণে গুরুত্বপূর্ণ?

পূর্ব লাদাখে অচলাবস্থার মধ্যে গত আড়াই মাসে ভারত ও চীন বেশ কয়েক দফা সামরিক ও কূটনৈতিক আলোচনা করেছে।